চীন

চীনে ক্রিপটোকারেন্সি ব্যবহারে ১১০০ জন ব্যক্তি গ্রেপ্তার

চীনের পুলিশ ১ হাজার ১০০ সন্দেহভাজন ক্রিপ্টোকারেন্সি ব্যবহারকারীকে টেলিফোন ও ইন্টারনেট প্রতারণার মাধ্যমে অবৈধ পন্থায় অর্থ পাচারের অভিযোগে গ্রেপ্তার করেছে। দেশটির জননিরাপত্তা মন্ত্রণালয় সূত্র এ তথ্য জানিয়েছে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, চীনা কর্তৃপক্ষ সম্প্রতি ক্রিপ্টোকারেন্সি লেনদেন প্রতিরোধে কঠোর অবস্থান নিয়েছে। গত মাসে তিনটি শিল্প সংস্থার পক্ষ থেকে ক্রিপ্টোকারেন্সি যুক্ত আর্থিক লেনদেন সেবা বন্ধ করে দেওয়া হয়। এ ছাড়া চীনের ক্যাবিনেট স্টেট কাউন্সিলের পক্ষ থেকে বিটকয়েন মাইনিং ও বাণিজ্য বন্ধ করার ঘোষণা দেওয়া হয়েছে।

এসব পাচারকারী অপরাধের সঙ্গে যুক্ত থাকা গ্রাহকদের কাছ থেকে দেড় থেকে ৫ শতাংশ হারে খরচ নিয়ে অবৈধ অর্থকে ভার্চ্যুয়াল মুদ্রায় রূপান্তর করে দিতেন।

চীনের পেমেন্ট অ্যান্ড ক্লিয়ারিং অ্যাসোসিয়েশন বলেছে, ভার্চ্যুয়াল মুদ্রা ব্যবহার করে অপরাধের সংখ্যা বাড়ছে। ক্রিপ্টোকারেন্সি ব্যবহারে পরিচয় গোপন রাখা এবং এটি বিশ্বব্যাপী গ্রহণযোগ্য হয়ে ওঠার কারণে আন্তসীমান্ত অর্থ পাচারের বড় চ্যানেল হয়ে উঠছে।

অবৈধ জুয়া কার্যক্রমে অর্থ পরিশোধের বড় মাধ্যম হয়ে উঠেছে এসব ক্রিপ্টোকারেন্সি। বর্তমানে প্রায় ১৩ শতাংশ জুয়ার সাইটে এ ধরনের ভার্চ্যুয়াল মুদ্রা সমর্থন করে। ব্লকচেইন প্রযুক্তির কারণে এ ধরনের অর্থের ওপর নজর রাখাও কর্তৃপক্ষের জন্য কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button