বিশ্বরাশিয়া

রুশ নভোযান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় নানা প্রশ্নের মুখে রাশিয়ার মহাকাশ গবেষণা সংস্থা

রুশ নভোযান বিধ্বস্ত হওয়ার ঘটনায় নানা প্রশ্নের মুখে রাশিয়ার মহাকাশ গবেষণা সংস্থা

৪৭ বছর পর রাশিয়া আবারও চন্দ্রাভিযান শুরু করায়; বিশ্বজুড়ে সৃষ্টি হয় আলোড়ন। তবে দুর্ঘটনার পর, পাল্টে গেছে পুরো দৃশ্যপট। রুশ মহাকাশ গবেষণা কেন্দ্র- রসকসমসের কর্মকাণ্ড নিয়ে চলছে তুমুল আলোচনা। ইউক্রেন অভিযান নিয়ে যখন আন্তর্জাতিক মহলের চাপে রাশিয়া, তখনই শুরু হয় চন্দ্রাভিযান। ইউরোপীয় দেশগুলো সরে যাওয়ায় পুরোপুরি নিজস্ব প্রযুক্তিতে এগোয় প্রকল্প। আর তাই এই অভিযানে সাফল্য পেলে, বৈশ্বিক রাজনীতি এবং অর্থনীতি দুই ক্ষেত্রেই বাজিমাত হতো পুতিন প্রশাসনের। কারণ, চাঁদের দক্ষিণ গোলার্ধে নামার কথা ছিলো Luna-25 এর। যেখানে- আগে কোন দেশের নভোযান অবতরণ করেনি। জমাট বরফ এবং পানির সন্ধানেই ছিলো এ অভিযান। তবে মিশন ব্যর্থ হওয়ায় প্রশ্নের মুখে রুশ মহাকাশ গবেষণা। তবে, এই দুর্ঘটনায় খুব বেশি পিছিয়ে পড়বে না চন্দ্রাভিযান, এমনটাই বলছেন গবেষকরা। রোববার চাঁদে অবতরণের আগ-মুহুর্তে বিধ্বস্ত হয় রাশিয়ার নভোযান- লুনা টোয়েন্টি ফাইভ। চন্দ্রপৃষ্ঠে সফট ল্যান্ডিংয়ের চেষ্টা করলে, নিয়ন্ত্রণ হারায় যানটি।

সম্পর্কিত নিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button