চীনজলবায়ু পরিবর্তনযুক্তরাষ্ট্র

জলবায়ু সহযোগিতা বাড়াতে সম্মত চীন-যুক্তরাষ্ট্র

নন্দন নিউজ ডেস্ক: স্কটল্যান্ডের গ্লাসগোয় কপ-২৬ শীর্ষ সম্মেলনে আগামী দশকজুড়ে জলবায়ু সহযোগিতা বৃদ্ধিতে সম্মত হয়েছে চীন ও যুক্তরাষ্ট্র। বিশ্বের সর্বাধিক কার্বন নিঃসরণকারী দেশ দুটি এক যৌথ ঘোষণায় একসঙ্গে কাজ করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। খবর বিবিসির।

যৌথ ঘোষণায় বলা হয়, উভয় পক্ষই ২০১৫ সালের প্যারিস চুক্তিতে নির্ধারিত ১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা লক্ষ্য অর্জনের জন্য ‘একত্রে কাজ করার জন্য তাদের দৃঢ় প্রতিশ্রুতি স্মরণে রাখবে’। এবং তারা কার্বন নিঃসরণের মাত্রা ‘উল্লেখযোগ্য ব্যবধান’ কমিয়ে আনতে ধাপে ধাপে প্রচেষ্টা চালিয়ে যাওয়ার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

স্থানীয় সময় বুধবার (১০ নভেম্বর) বিরল যৌথ ঘোষণায়, মিথেন নির্গমন, নবায়নযোগ্য জ্বালানি ব্যবহার, ডি-কার্বনাইজেশনসহ বিভিন্ন বিষয়ে পদক্ষেপ নিতে একমত হয় যুক্তরাষ্ট্র-চীন।

বিজ্ঞানীরা বলছেন, বৈশ্বিক তাপমাত্রা বৃদ্ধি ১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে সীমিত করতে পারলে মানবজাতিকে জলবায়ুর সবচেয়ে খারাপ প্রভাব এড়াতে সাহায্য করবে। এটি প্রাক-শিল্প তাপমাত্রার সাথে তুলনা করা হয়।

২০১৫ সালে প্যারিসে বিশ্ব নেতারা কার্বন নির্গমন হ্রাসের মাধ্যমে ১ দশমিক ৫ ডিগ্রি থেকে ২ ডিগ্রি বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধি থেকে রক্ষা করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।

চীনের শীর্ষ জলবায়ু আলোচক শি জেনহুয়া সাংবাদিকদের বলেছেন, জলবায়ু পরিবর্তনের বিষয়ে চীন ও যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যে ভিন্নতার চেয়ে বেশি চুক্তি রয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন এবং তার চীনা প্রতিপক্ষ শি জিনপিং আগামী সপ্তাহের প্রথম দিকে একটি ভার্চুয়াল বৈঠক করবেন বলে আশা করা হচ্ছে। দুই দেশকে বিভিন্ন বিষয়ে বৈশ্বিক প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে দেখা হয়।

 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button