যুক্তরাষ্ট্র

পারমাণবিক চুক্তির আলোচনায় যুক্তরাষ্ট্রকে ‘একমাত্র’ শর্ত দিল ইরান

নন্দন নিউজ ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহারের বিষয়টি পারমাণবিক চুক্তির আলোচনার ক্ষেত্রে ইরানের একমাত্র শর্ত বলে সোমবার ইরান জানিয়েছে।  এ বিষয়ে তারা কোনো আপস করবে না।

ইরানের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবজাদাহ জানিয়েছেন, ২০১৫ সালের পারমাণবিক চুক্তির আলোচনা পুনরুজ্জীবিত করতে হলে যুক্তরাষ্ট্রকে অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা তুলে দিতেই হবে।

তিনি আরও জানিয়েছেন, মঙ্গলবার পারমাণবিক চুক্তি নিয়ে ফের আলোচনা হবে।

শুক্রবার ইরানের বেসামরিক পরমাণু কর্মসূচির ওপর নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে নেয় যুক্তরাষ্ট্র।  ইরানের সঙ্গে হওয়া পরমাণু চুক্তিতে ফিরে আসার পদক্ষেপের অংশ হিসেবে এ উদ্যোগ নেয় জো বাইডেন প্রশাসন।

তবে এ বিষয়টি ইরানের কাছে কম গুরুত্বপূর্ণ বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয়ের মুখপাত্র সাঈদ খাতিবজাদাহ।

তিনি বলেন, নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার ও এটি থেকে ইরান উপকৃত হওয়ার বিষয়টি আলোচনার ক্ষেত্রে ইরানের একমাত্র শর্ত।

তিনি আরও বলেন, ওয়াশিংটন একটি উদ্যোগ নিয়েছে।  কিন্তু ইরানের অর্থনৈতিক অবস্থার ওপর যার কোনো প্রভাব পড়বে না।  যুক্তরাষ্ট্রের এই চুক্তিতে ফিরে আসা উচিত এবং শর্তগুলো পূরণ করা উচিত।

এদিকে ২০১৫ সালে  ইরানের সঙ্গে বিশ্বের পরাশক্তিদের পারমাণবিক চুক্তি হয়েছিল।  এই চুক্তির মাধ্যমে ইরান কথা দিয়েছিল তারা তাদের পারমাণবিক কার্যক্রম কমিয়ে দেবে। এর বদলে তাদের ওপর আরোপিত অর্থনৈতিক নিষেধাজ্ঞা  তুলে দেওয়া হবে।

কিন্তু ২০১৮ সালে যুক্তরাষ্ট্রের তৎকালীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যুক্তরাষ্ট্রকে চুক্তি থেকে সরিয়ে নেন এবং ইরানের  ওপর ফের নিষেধাজ্ঞা দেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button