যুক্তরাষ্ট্র

চালকের আসনে ১৩ বছরের কিশোর, পিকআপের ধাক্কায় নিহত ৯

নন্দন নিউজ ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে গেল মঙ্গলবার (১৫ মার্চ) পিকআপের সঙ্গে একটি যাত্রীবাহী গাড়ির সংঘর্ষে প্রাণ হারিয়েছেন নয়জন। দেশটির গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই জানিয়েছে, দুর্ঘটনার সময় পিকআপটির চালকের আসনে ছিল ১৩ বছরের এক কিশোর। খবর বিবিসির।

বৃহস্পতিবার (১৭ মার্চ) এক সংবাদ সম্মেলনে এফবিআই’র কর্মকর্তারা জানান, পিকআপটির বাম দিকে একটি স্পেয়ার (অতিরিক্ত) টায়ার লাগানো ছিল। সেটি হঠাৎ ফেটে গেলে পিকআপটি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে যাত্রীবাহী গাড়িটিকে ধাক্কা দেয়। আর তাতেই মারাত্মক দুর্ঘটনাটি ঘটে।

যাত্রীবাহী ওই গাড়িতে নিউ মেক্সিকোর একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্রীড়াবিদরা ছিলেন। দুর্ঘটনায় ছয় গলফার, তাদের কোচ, কিশোর পিকআপচালক ও তার সহযাত্রী মারা যান। নিহত ছয় গলফারের মধ্যে একজন পর্তুগালেল ও একজন মেক্সিকোর নাগরিকও ছিলেন।

সংঘর্ষে বেঁচে যাওয়া দুই কানাডীয় শিক্ষার্থী এখনো হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। তবে তাদের অবস্থা স্থিতিশীল বলে জানা গেছে।

টেক্সাস ডিপার্টমেন্ট অব পাবলিক সেফটি’র সার্জেন্ট ভিক্টর টেলর বার্তা সংস্থা এপিকে বলেন, এ রাজ্যে ১৩ বছর বয়সীদের গাড়ি চালানো বেআইনি। টেক্সাসে ১৪ বছর বয়সে শিশুর ক্লাসরুমে ড্রাইভিং পাঠ শুরুর অনুমতি দেওয়া হয়। ১৫ বছর বয়সে ড্রাইভিং শুরুর অনুমতি রয়েছে। তবে সেক্ষেত্রে অবশ্যই একজন প্রশিক্ষক বা লাইসেন্সপ্রাপ্ত পূর্ণবয়স্ক কাউকে সঙ্গে রাখতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে ন্যাশনাল ট্রান্সপোর্টেশন সেফটি বোর্ডের (এনটিএসবি) কর্মকর্তারা বলেন, মুখোমুখি সংঘর্ষের সময় গাড়ি দুটি কত দ্রুত চলছিল তা এখনো স্পষ্ট নয়। সংঘর্ষের পর দুটি গাড়িতেই আগুন ধরে যায়।

এনটিএসবি বলছে, গাড়ির যাত্রীদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের সিটবেল্ট পরা ছিল না। দুর্ঘটনার পর একজন গাড়ি থেকে ছিটকে বাইরে পড়ে যান।

সম্পর্কিত নিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button