ইউরোপএশিয়াবিশ্ব

ফিলিপিন্সে বন্যা, ভূমিধসে ১৬৭ মৃত্যু; নিখোঁজ ১১০

নন্দন নিউজ ডেস্ক: ফিলিপিন্সে ক্রান্তীয় ঝড় মেগির ধ্বংসযজ্ঞের পর বন্যা ও ভূমিধসে অন্তত ১৬৭ জনের মৃত্যু হয়েছে।

দেশটির জাতীয় দুর্যোগ সংস্থা জানিয়েছে, আরও ১১০ জন এবং ১৯ লাখ লোক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

বিবিসি জানিয়েছে, লেইতে প্রদেশের বাইবাই শহরের আশপাশের গ্রামগুলো সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, এখানে বহু পাহাড়ে ভূমিধস হয়েছে এবং নদী উপচে বন্যা দেখা দিয়েছে। পিলার নামের একটি গ্রামের প্রায় ৮০ ভাগ ঘরবাড়ি সাগরে ভেসে গেছে।

দক্ষিণাঞ্চলীয় দাভাও অঞ্চল, মিনদানাও এবং মধ্যাঞ্চলীয় নেগ্রোস ওলিয়েন্টালস প্রদেশেও মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে।

ক্রান্তীয় ঝড় মেগি, যাকে স্থানীয়ভাবে আগাটন বলা হচ্ছে, গত রোববার সর্বোচ্চ ৬৫ কিলোমিটার বাতাসের বেগ নিয়ে দ্বীপপুঞ্জটির ওপর দিয়ে বয়ে যায়। চলতি বছর এটিই এ ধরনের প্রথম ঝড়। ফিলিপিন্সে বছরে গড়ে এ ধরনের ২০টি ঝড় হয়।

ঝড়টি পূর্ব উপকূলজুড়ে বয়ে যাওয়ার আগে ওই অঞ্চলের ১৩ হাজারেরও বেশি মানুষ উঁচু জায়গাগুলোতে গিয়ে আশ্রয় নিয়েছিল। ব্যাপক ঝড়বৃষ্টির মধ্যে বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ হয়ে যায়, বাড়িঘর ও মাঠ পানিতে তলিয়ে যায় এবং গ্রামগুলোতে ভূমিধস শুরু হয়।

মঙ্গলবার থেকে পরিস্থিতির কিছুটা উন্নতি হলেও বৃষ্টির কারণে উদ্ধার প্রচেষ্টা বিঘ্নিত হচ্ছে।

কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয়দের শেয়ার করা ছবিতে উদ্ধারকারীদের কর্দমাক্ত জলাভূমির মধ্যে দিয়ে হেঁটে ও দ্রুত বয়ে যাওয়া নদীতে রবারের ডিঙ্গি ব্যবহার করে ডুবে যাওয়া বাড়ি ও বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া এলাকাগুলোতে পৌঁছানোর চেষ্টা করতে দেখা গেছে।

চার মাস আগে ডিসেম্বরে সুপার টাইফুন রাই ফিলিপিন্সের দক্ষিণপূর্বাঞ্চলীয় দ্বীপগুলোকে ধ্বংসস্তূপে পরিণত করেছিল। তখন অন্তত ৩৭৫ জনের মৃত্যু ও প্রায় ৫ লাখ লোক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছিল।

সম্পর্কিত নিউজ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button